আন্তর্জাতিকঃ ইংল্যান্ডের চেলটেনহা’মের হা’থারলি এলাকায় গত ২১ জুলাই থেকে ৬ আ’গস্ট পর্যন্ত (১৭ দিনে) ১১ জন না’রী ও কি’শোরীকে যৌ’ন হ’য়রানির অ’ভিযোগে এক কি’শোরকে আ’টক করা হয়েছে। গত শুক্রবার বিকেলে অ’ভিযুক্তকে আ’টক করা হয়। এ ব্যা’পারে এখন ত’দন্ত চলছে।

পু’লিশ বলছে, একাকি হেঁ’টে চ’লা না’রী কিংবা সাইকেল চা’লিয়ে কোনো না’রীকে যেতে দেখলে যৌ’ন হ’য়রানি করতো ওই কি’শোর। হু’ট করেই না’রীদের জ’ড়িয়ে ধ’রা বা চ’ড় মা’রা ছিল তার নে’শার মতো।

আ’টক কি’শোর যে ঘ’টনাগুলো ঘটিয়েছে ওই এলাকার সিসিটিভি ক্যা’মেরায় সেগুলো ধ’রা প’ড়েছে। সেই ভিডিওগুলো খ’তিয়ে দেখছে পু’লিশ।

‘চরখাদক’ সাবেক স’চিবের ভ’য়ংকর জমিদারি!

মনিরুল মোস্তফা বলেন, ‘জমিটি ফেরত পেতে মনপুরার চৌধুরীবাড়িতে গিয়ে অনেক আকুতি জানিয়েছিলাম, কিন্তু একটুও মন গলেনি ওদের। উল্টো আমাকে গ’লা ধাক্কা দিয়ে বের করে দেয় নাজিম উদ্দিনের লোকজন।’

একই অভিযোগ সত্তরোর্ধ্ব ভূমিহীন বেলায়েত হোসেনের। ১৯৬০-৬১ সালে ৮৩ নম্বর নথির মাধ্যমে হাতিয়া উপজে’লা প্রশাসন থেকে আড়াই একর জমি বন্দোবস্ত পেয়েছিলেন তিনি। সেই জমি থেকে ১০ বছর আগে নাজিম উদ্দিন চৌধুরীর ক্যাডার বাহিনী তাঁকে উ’চ্ছেদ করেছে।

বেলায়েত কা’ন্নাজ’ড়িত কণ্ঠে বলেন, ‘আমাদের ভিটামাটি নদী খেয়েছে, আমাদের মাথা গোঁজার ঠাঁই নেই। স’চিবের অর্ডারি পু’লিশ দিয়ে আমাদের জমি দ’খল করে নিল।

রাত পোহালেই স’চিবের জমি বাড়ে আর ঢালচরের ভূমিহীনদের জমি কমে। ঢালচরের পশ্চিমে যতটুকু চোখ যায় শুধু স’চিবের জমি আর জমি।’

বেলায়েত বলেন, ‘বলতে পারবেন, আর কত জমি পাইলে স’চিবের কলিজাটা ভরবে? আর কত জমি দরকার চৌধুরীর?’ কথা শেষ না হতেই কাঁদতে শুরু করেন তিনি।

মনিরুল মোস্তফা ও বেলায়েত হোসেনের মতো ঢালচরের শত শত ভূমিহীন পরিবারের জমি দ’খলে নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে সাবেক স’চিব নাজিম উদ্দিন চৌধুরীর বি’রুদ্ধে।

ভোলার চরফ্যাশন উপজে’লার ঢালচরে নিজের ক্যাডার বাহিনী দিয়ে ছয় হাজার বিঘা জমি দ’খলে নেওয়ার অভিযোগ আছে সাবেক এই আমলার বি’রুদ্ধে।

সেখানে শতাধিক মাছের খামারসহ হাঁস, মহিষ, গরু ও ছাগল-ভেড়ার খামার করেছেন। দুর্গম চরে তিনি নির্মাণ করেছেন হেলিপ্যাডসহ আলিশান বাড়ি।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, রাজধানীর গুলশানে আট কোটি টাকার বিলাসবহুল ফ্ল্যাটে থাকেন সাবেক জ্বা’লানিস’চিব নাজিম চৌধুরী। স্ত্রী-স’ন্তানের নামে বনানী ও মোহাম্ম’দপুরে আছে ১১ কোটির দুটি ফ্ল্যাট ও বাড়ি। চলাচল করেন লেক্সাস ও ল্যান্ড ক্রুজার ব্র্যান্ডের দামি গাড়িতে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here