ঘ’টনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ই’সরায়েলের পর্যটন নগরী ইলাতে। ওই শহরের একটি পর্যটন মোটেলে ১৭ বছরের এক কি’শোরীকে গণধ’র্ষণের অ’ভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার ওই কি’শোরীর অ’ভিযোগের পর ২৭ বছরের এক যুবককে আ’টক করেছে দেশটির পু’লিশ।

পু’লিশ জানায়, মোটেলটির সিসিটিভির ফুটেজ দেখে একজনকে শনাক্ত করা হয়। পরে তাকে অ’ভিযান চা’লিয়ে আ’টক করা হয়। অন্যদের আ’টকে অ’ভিযান চলছে বলে জানায় ই’সরায়েল পু’লিশ। খবর হারেতজ ও টাইমস অব ই’সরায়েলের।

প্রতিবেদনে বলা হয়, লোহিত সাগরের পাড়ে অবস্থিত ই’সরায়েলের বন্দর নগরি ইলাত জর্ডান উপত্যাকার পাশে অবস্থিত। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত এলাকাটিতে ঘুরতে আসেন ওই কি’শোরী তার এক বন্ধুর স’ঙ্গে। সেখানে তারা মোটেলের একটি কক্ষ ভাড়া নেন।

ভু’ক্তভোগীর স’ঙ্গে থাকা তার বন্ধু চেষ্টা করেও তাকে রক্ষা করতে পারেননি বলে পু’লিশ জানায়।

ই’সরায়েলের ধ’র্ষণ রোধে কাজ করা একটি সংস্থা অ্যাসোসিয়েশন অব রেপ ক্রাইসিস সেন্টার জানায়, শুধু ২০১৮ সালে ৬ হাজার ২২০টি ধ’র্ষণের ঘ’টনায় অনুসন্ধ্যান করে পু’লিশ।

যার মধ্যে ১ হাজার ৭শ অ’ভিযুক্ত সরাসরি ধ’র্ষণের স’ঙ্গে যুক্ত থাকার প্রমাণ পাওয়া যায়। যা তার আগের বছরের তুলনায় ১২ শতাংশ বৃ’দ্ধি পেয়েছে এবং ৫ বছরের ব্যবধানে ৪০ শতাংম বৃ’দ্ধি পেয়েছে।

২০১৮ সালে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে দেখা যায় ই’সরায়েলে ধ’র্ষণের অ’ভিযোগে মা’মলা হওয়া ৬৩ শতাংশ ঘ’টনায় ভুক্তভোগি ১২ থেকে ১৮ বছরের।

গত বছর ১১ সদস্যের একটি দল কি’শোরকে গণধ’র্ষণের অ’ভিযোগে আ’টক করে সাইপ্রাস পু’লিশ। পূর্ব ভূমধ্য সাগরীয় দ্বীপটিতে ছুটি কা’টাতে গিয়েছিলেন এক ব্রিটিশ না’রী। সেখানে তিনি গণধ’র্ষণের শি’কার হন ই’সরায়েলি এই কি’শোরদের দ্বারা। যদিও তিনি ঘ’টনা প্রমাণ করতে ব্যর্থ হওয়ায় সাইপ্রাসের পু’লিশ আ’টকদের মুক্তি দেয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here