যখন দিল্লি আর বেইজিং এর সং’ঘা’ত নিয়ে দুই দেশেই উত্ত’প্ত পরিস্তিতি তখন পাকিস্তান ভারতের জন্য নতুন চিন্তার উ’দ্রে’গ করলো। ভারতের একাধিক ভূখন্ড তাদের মানচিত্রে সংযুক্ত করে ভারতকে ভালোই বি’ব্র’ত করলো পাকিস্তান।

‘সাংহাই কো-অপারেশন অর্গানাইজেশনে’র সদস্য দেশগু’লির আয়োজনে ভার্চুয়াল মিটিং অনুষ্ঠিত হয় মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর)।

এই মিটিংয়ে পাকিস্তানের এই ম্যাপ দেখা পর ‘ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইসার (এনএসএ)-র এই ভা’র্চুয়াল মিটিং থেকে ক্ষু’ব্ধ হয়ে বের হয়ে যায় ভারত।

এই মিটিংয়ে পাকিস্তান তাদের দেশের যে নতুন ম্যাপটি তুলে ধরে তাতে দেখা যায়, জম্মু ও কাশ্মীর, লাদাখ এবং গুজরাতের কিছু অংশ অবলীলায় পাকিস্তানের সেই মানচিত্রে রয়ে গেছে।

এই ঘ’টনায় ভারতের পররাষ্ট্র মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীবাস্তব জানান, এনএসএ-র এই মিটিংয়ে পাকিস্তান ই’চ্ছাকৃতভাবে একটি কাল্পনিক মানচিত্র তুলে ধরেছে।

যে কোনও আলোচনার আসরে এই ধরনের কাজ তো মিটিংয়ের মূ’ল লক্ষ্যটিকেই ব্যাহত করে। তা ছাড়া মিটিংয়ের হোস্টের পক্ষেও এটা বেশ অবমাননাকর ব্যাপার। যে অপ’মানের মুখোমুখি এ ক্ষেত্রে হল রাশিয়া।

ঘ’টনা হল, আসল মানচিত্র যা-ই হোক, আর পাকিস্তান যে মানচিত্রই বৈঠকে তুলে ধরুক তার তুল্যমূ’ল্য বিচার নিয়ে পাকিস্তানের তরফে কোনও স্পষ্ট ও স্বচ্ছ বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

তবে বৈঠক থেকে বেরিয়ে যাওয়ায় ভারতকে সমালোচনা করতেও ছাড়েনি তারা। পাকিস্তান জানায়, যে-ফোরামের কাজই সহযোগিতার আবহ তৈরি করা সেই রকম একটি মঞ্চ থেকে ভারতের এই ভাবে বেরিয়ে যাওয়াটা বেশ বাজে একটা ব্যাপার।

এই মিটিংয়ে পাকিস্তানের এই ম্যাপ দেখা পর ‘ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাডভাইসার (এনএসএ)-র এই ভা’র্চুয়াল মিটিং থেকে ক্ষু’ব্ধ হয়ে বের হয়ে যায় ভারত।

যখন দিল্লি আর বেইজিং এর সং’ঘা’ত নিয়ে দুই দেশেই উত্ত’প্ত পরিস্তিতি তখন পাকিস্তান ভারতের জন্য নতুন চিন্তার উ’দ্রে’গ করলো। ভারতের একাধিক ভূখন্ড তাদের মানচিত্রে সংযুক্ত করে ভারতকে ভালোই বি’ব্র’ত করলো পাকিস্তান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here