‘পাড়ার লোকেরা মু’সলমানদের থাকতে দিতে চায় না’ এই অজুহাতে পশ্চিমবঙ্গের রাজধানী কলকাতা লাগোয়া এক এলাকার দুটি গেস্ট হাউস থেকে ১০ জন মু’সলমান শিক্ষককে তাড়িয়ে দেয়া হয়েছে বলে অ’ভিযোগ উঠেছে।

ওই ১০ জন মাদ্রাসা শিক্ষক মালদা থেকে সোমবার খুব ভোরে পৌঁছেছিলেন বিধাননগরে। তাদের কেউ প্রধান শিক্ষক, কেউ সহকারী শিক্ষক। রাজ্য মাদ্রাসা শিক্ষা দফতরে স’রকারি কাজে এসেছিলেন তারা।

ক্লান্ত শিক্ষকরা অগ্রিম টাকা দিয়ে বুক করে রাখা গেস্ট হাউসের ঘরে গিয়ে একটু বিশ্রাম নিতে চাইছিলেন দ্রু’ত। একটু পরে রাস্তায় বেরিয়ে খাবার খেতে গিয়েছিলেন।

তখনই লোকজন তাদের দাড়ি-টুপি-পাজামা-পাঞ্জাবী দেখে স’ন্দে’হ করেছেন। এটা অনেক পরে বুঝতে পারেন ওই দলে থাকা মুহাম্ম’দ মাহবুবুর রহমান নামের একজন প্রধান শিক্ষক।

এখানে নিয়ে এসে বসিয়ে রেখেছেন, ঘর দিচ্ছেন না? ম্যানেজার তখন বলে আপনাদের এখানে থাকতে দেওয়া যাবে না। আপনারা চলে যান।

তারা সবাই খুব অবাক হয়েছিলেন এভাবে হে’নস্থা হওয়ার জন্য। কিন্তু কারণটা তখনও বুঝতে পারেননি। যে শিক্ষক সংগঠনের নেতার মাধ্যমে ঘর বুকিং করেছিলেন তাকে খবর দেন তারা।

তিনি বলেন, তখনও আমরা কারণটাই বুঝতে পারছি না যে কেন এমন ব্যবহার করল। আমাদের সংগঠনের নেতা মইদুল ইসলামকে ফোন করি।

তিনি ম্যানেজারের স’ঙ্গে কথা বলে আমাদের জানান যে থাকতে হবে না আপনাদের ওখানে। বেরিয়ে আসুন। এমন ঘ’টনায় তারা খুব অ’পমানিত হয়েছেন।

ধর্মীয় কারণে নি’র্যাতনের শি’কার হওয়া ওই ১০ জন মাদ্রাসা শিক্ষক ‘পশ্চিমবঙ্গ শিক্ষক ঐক্য মুক্ত মঞ্চ’ নামক একটি সংগঠনের সদস্য। ওই সংগঠনের পক্ষ থেকে বিধাননগর পূর্ব থানায় এই ঘ’টনার পরিপ্রেক্ষিতে লিখিত অ’ভিযোগ দা’য়ের করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here