বিয়ের দাবিতে প্রে’মিকের বাড়িতে তিনদিন যাবত অবস্থান করেছেন প্রে’মিকা (১৮)। অবস্থানের পর থেকে পা’লিয়েছে প্রে’মিক আরিফ মিয়া (২১)।

মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) ময়মনসিংহের সদরে উপজে’লার সুহিলা বুধবাড়িয়া গ্রামের প্রে’মিক আরিফ মিয়ার বাড়িতে প্রে’মিকা অবস্থান করছেন। প্রে’মিক আরিফ মিয়া সদর উপজে’লার সুহিলা বুধবাড়িয়া গ্রামের রুহুল মিয়ার ছেলে।

সূত্র জানায়, গত রোববার (২৭ সেপ্টেম্বর) থেকে সদর উপজে’লার সুহিলা বুধবাড়িয়া গ্রামের রুহুল মিয়ার ছেলে আরিফ মিয়াকে বিয়ের দাবিতে প্রে’মিকা অবস্থান করছেন।

বিয়ের দাবিতে অবস্থান করা তরুণী বলেন, আরিফের স’ঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে আমার প্রেমের সম্প’র্ক ছিল। প্রেমের এক পর্যায়ে আরিফ আমাকে বিয়ে করবে বলে একাধিকবার শা’রীরিক সম্প’র্ক গড়ে তুলেন।

প্রে’মিকা বলেন, এমন অবস্থায় আমি বিয়ের দাবিতে আরিফের বাড়িতে অবস্থান করছি। আমি আসার পর থেকেই আরিফ বাড়ি থেকে পা’লিয়েছে। এদিকে আমার স্বা’মীও আমাকে নেবে না। আরিফ আমাকে বিয়ে না করলে আত্মহ’ত্যা ছাড়া আমার উপায় নেই।

তরুণীর মা বলেন, মে’য়ের অন্যত্র বিয়ে দিয়েছিলাম। কিন্তু, আরিফ সেখানে মে’য়েকে থাকতে দেয়নি। বিয়ে করবে বলে মে’য়েকে স্বা’মীর বাড়ি থেকে নিয়ে আসছে। গত রোববার আমার মে’য়ে আরিফের বাড়িতে আসছে।

তিনি বলেন, তখন থেকে আরিফ প’লাতক। বি’ষয়টি পু’লিশকে জানালে সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) আরিফের বাড়িতে গেলে স্থানীয়রা

বি’ষয়টি মীমাংসা করে দেবেন বলে আশ্বাস দিলে পু’লিশ চলে আসে। কিন্ত এখন পর্যন্ত এ বি’ষয়ে কেউ আমাদের কিছু বলেনি।

এ বি’ষয়ে কোতোয়ালী থানার এসআই শহিদুল ইসলাম বলেন, সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) মে’য়ের মা লিখিত অ’ভিযোগ দেয়ার পর আমি ঘ’টনাস্থলে গিয়েছিলাম।

স্থানীয়রা বি’ষয়টি মীমাংসার আশ্বাস দিলে মে’য়ের মা রাজি হয়। পরে আমি চলে আসি। তবে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত কোনো মীমাংসা হয়নি। এ বি’ষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here