দেশের ৮০ শতাংশ বিবাহিত পুরুষ ‘মা’নসিক’ নি’র্যাতনের শি’কার৷ সামাজিক লজ্জার ভ’য়ে অনেকেই এসব বি’ষয় প্রকাশ করতে চান না৷

নিজেদের পরিচালিত এক গবেষণার ভিত্তিতে এই তথ্য জানিয়েছে বাংলাদেশ মেন’স রাইটস ফাউন্ডেশন৷বেস’রকারি সংগঠনটি বলছে,

সামাজিক লজ্জার ভ’য়ে পরিচয় প্রকাশ করেন না অভিযোগকারীরা৷ বিবাহিত অনেক পুরুষের নি’র্যাতনের শি’কার হওয়ার বি’ষয়ে একমত মা’নবাধিকারকর্মীরাও৷

তারা বলছেন, পুরুষদের নি’র্যাতিত হওয়ার খবর তাদের কাছে আসে৷ তবে যেই নি’র্যাতিত হোক তার আইনি সুরক্ষার দাবি জানান তারা৷

সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান শেখ খাইরুল আলম জানান, ‘নি’র্যাতিত পুরুষদের’ পরামর্শ ও আইনি লড়াইয়ে সহযোগিতা দিতে এই সংগঠনটির আত্মপ্রকাশ৷

মিয়ানমার পুলিশের গুলিতে বাংলাদেশির মৃত্যু

তিনি বলেন, ‘‘আমাদের কাছে প্রতিদিন যে ফোন আসছে তাতে আমরা দেখেছি, নীরবে চোখের জল ফেলছেন অনেক পুরুষ৷ লজ্জায় তারা নি’র্যাতনের

কথা বলতে পারছেন না৷ কোন নারী নি’র্যাতিত হলে তিনি তো বিচার চাইতে পারেন৷ অনেক সংগঠন তার পাশে দাঁড়ায়৷ নি’র্যাতিত পুরুষদের সহযোগিতার জন্য আমরা এ সংগঠনটি করেছি৷”

নিজেও এমন নি’র্যাতনের শি’কার দাবি করে আলম বলেন, ‘‘নি’র্যাতনের শি’কার হয়ে আমি অনেক মা’নবাধিকার সংগঠনের কাছে গিয়েছি৷

তারা কেউই নি’র্যাতিত পুরুষদের পাশে দাঁড়াতে রাজি হয়নি৷ অনেকটা বা’ধ্য হয়েই আমরা এই সংগঠন করেছি৷ এখন আমরা নি’র্যাতনের শি’কার পুরুষকে

আইনি লড়াইয়ে সহযোগিতা করছি৷ তাদের পরামর্শ দিচ্ছি৷ জাতীয় সং’সদে পুরুষ নি’র্যাতনবি’রোধী আইন করার জন্য রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপিও দিয়েছি৷

এই আইনের যৌক্তিকতা তুলে ধরে প্রচারণাও চালাচ্ছি৷’’সংগঠনটির গবেষণার বি’ষয়ে জানতে চাইলে আলম বলেন, ‘‘আমাদের কাছে প্রতিদিন যে অ’ভিযোগ আসে

তার ভিত্তিতেই আমরা গবেষণাটি করেছি৷ তবে স’মস্যা হলো, কেউই লিখিত অ’ভিযোগ করতে চান না৷ ফলে আমাদের কাছে এ বি’ষয়ে কোন দলিলাদি নেই৷’’

সাম্প্রতিক সময়ের উদাহরণ দিয়ে আলম বলেন, ‘‘গত শুক্রবার ঢাকার মিরপুর থেকে একজন ফোন করে নি’র্যাতনের অ’ভিযোগ করছেন৷ তিনি ফোন করে কাঁদছিলেন৷ লজ্জায়

নিজের পরিচয় প্রকাশ করতে রাজি হননি৷ অধিকাংশ পুরুষের ক্ষেত্রেই একই চিত্র, নীরবে চোখের জল ফেলছে, প্রতিকার চাইতে পারছে না৷’’

সংগঠনটির দাবি বিদেশ থেকে ফোন করেও অনেকে তাদের কাছে নি’র্যাতনের অভিযোগ করছে৷সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী ফারুক সাজেদের মতে,

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here