নি’র্ম;’ম, ভ’;য়া;ব’হ পাশ;বিকতা। যে গৃহ;কর্মী;র দা;য়ি;ত্বে বৃদ্ধা মা’কে রেখে সন্তানরা জী’বিকার প্রয়োজনে বাইরে, তার কারণেই এখন জীব;নমৃ’;ত্যু;’র সন্ধিক্ষণে সেই মা।

রা;জধা;নীর মালি;বাগে ফাঁ;কা বাসায় গৃহ;ক’র্মীর হাতে, নি’র্ম’;ম নি’;;ত’নের শি’কার হয়েছেন সত্ত;রো’র্ধ্ব বি;লকি;স বেগম।

পরে ন;গদ টাকা, স্ব;র্ণ;সহ স;টকে পড়ে ওই গৃ’হ;ক’র্মী। ঘটনা;র সিসি ক্যা;মেরার ফু;টেজ এসে;ছে চ্যা;নেল 24 এর হাতে।

সোমবার সকাল সো;য়া দশটা। বছর তি;নকে ধরে কিড;নী;সহ না;না সমস্যায় ভোগা বিল;কিস বেগম শুয়ে আছেন বি;ছানা;য়।

জোর করে বিল;কিস বেগ;মকে বাথ;রুমে ঢোকা;য় রেখা। এরই মা;ঝে খুলে ফেলে তার শ’রী;রের সব কা’পড়।

শীতে;র সকালে বৃ’;দ্ধার গায়ে ই’চ্ছে;;মতো ঢালা হয় ঠা’ণ্ডা পানি। কিন্তু ভে;তরে গৃহ;কত্রী;কে আ’টকাতে না পেরে বে’রিয়ে আসে রেখার আস;ল চেহা;রা।

যে লা’ঠি বৃদ্ধ বয়সে ছিলো ভরসা, তা দি;য়েই শুরু।মা’র খে’য়ে ফ্লো’রে প’ড়ে গে’লেও ক্ষা’ন্ত হননি এ’কের পর এক আ’ঘা’ত করা হ;য় মা’থায়।

একপর্যায়ে হা’তের কাছে যা পে’য়ে;ছে তা দিয়েই চা’লিয়েছে নি’র্যা;ত;’ন। আ’লমারির চা’বির জ;ন্য বুকে উপর চেপে বসে।

বটি হাতেও তেড়ে আসেন রেখা। এসব কিছুর মাঝে তার লক্ষ্য আ;ল;মারি।একসময় অ;হা;য়ের মতো আ’ত্ম;স;মর্পণ করে;ন বি;লকিস বেগম।

গলা থেকে চে’ইন খু’লে পরে নেয় আ’য়ে;শি ভ’ঙ্গি;;তে পরখ করে নেন হাতের বালা।তারপর চাবির সন্ধান পায় নি’ষ্ঠুর এই গৃ’হকর্মী।

কিন্তু খুলতে না পেরে র’;;’ক্ত, অ’সুস্থ বৃদ্ধাকে টেনে নি;য়ে বাধ্য করে;ন আ’লমারি খুলে দিতে। ড্রয়ার খুলে স্ব;র্ণ, নগদ টাকা, মোবাইল সবই; হস্ত;গত করে রেখা।

পুরোটা সময় বি’ব’স্ত্র বৃদ্ধা, নি;জের হাতেই র’ক্ত থা’মাতে মাথা;য় বাঁ’ধেন কাপড়। সব হা’তানোর পর ক’;ক্ষে; তালা দেয় রেখা।

তারপর খুলে আনে; টিভি। জোগাড় করে ব্যাগ। সবকিছু গু’ছিয়ে ফাকা বাসায় আ’হ’ত বৃদ্ধাকে ফেলে বে’রিয়ে যায় ভ’য়ংক’র গৃ;;হক’র্মী।

মালি;বাগের এই বা;সাটি বে;শপুরনো;। স্বামী মৃ’ত্যু’র পর দুই ছেলে ও তিন মেয়ের মধ্যে দুজনকে নিয়ে এতো;দিন নিরা;প;দেই বস;;বাস করে আস;ছিলেন ;বি;লকিস বেগম।

ব্য;বসা;য়ীক কাজে বাসা ফাঁ;কা রেখে ঢাকার বাইরে যাওয়াকে দু’ষছেন মেয়ে মেহবুবা। মা;কে হাসপা;তালে ভ;র্তির পর মঙ্গলবার পু;লিশে;র কাছে অ’ভিযো;গ জানান।

শাহ;জাহা;নপুর থা’না পু;লিশ বলছে, গৃহ;কর্মী;দের নামে ছ;দ্মবে;শে পেশা;;দার অ’প;রা;ধীরা ঢুকে যাচ্ছে মানুষের বা;সাবাড়ি;তে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here