বিশ্ববাসী আছে করো’না ভাই’রাস এর আশ’ঙ্কায়।কবে কখন কিভাবে কে আ’ক্রান্ত হয়ে পড়বে সেই চিন্তায় বিনিদ্র রজনী কাটছে অনেকের

কিন্তু এরই মধ্যে আবার অনেক ভিন্নধ’র্মী ঘটনাও ঘটছে বিভিন্ন জায়গায়। সম্প্রতি ভা’রতের বেঙ্গালুরুতে এমনই একটি ঘটনা ঘটেছে।

শুরু হয়েছে তখন থেকেই গোসল করা বন্ধ করে দিয়েছে এবং শুধু তাই নয় তিনি রীতিমত শারীরিক স’ম্পর্ক করতে হবে বলে স্ত্রী’’কে জো’রজবস্তি করে চলেছেন

সেই ২৪ মা’র্চ যবে থেকে দেশজুড়ে লকাডাউন শুরু হয়েছে, তখন থেকেই স্নান করা রীতিমতো বন্ধ করে দিয়েছেন স্বামী। শুধু তাই নয়। শারীরিক স’ম্পর্ক করতে হবে বলে প্রতিনিয়ত স্ত্রী’’কে তিনি জো’রজবরদস্তি করেই চলেছেন।

খবর এই সময়’র। বেঙ্গালুরু পু’লিশ বলছে, ওই নারীর বয়স ৩১ বছর।দুই সন্তানের মা তিনি। তার স্বামী একটি মুদিখানা দোকান চালান।

হুট করেই নগদের জোগান কমে যাওয়ায় লকডাউন শুরু হতেই দোকান বন্ধ করে দেন ওই ব্যক্তি।এদিকে মনম’রা হয়ে পড়ে থেকে নিজের স্বাস্থ্যবিধির ভালো জ্ঞানটাই হারিয়ে ফেলেন। স্বামী।

লকডাউনে স্নান করাই বন্ধ করে দেন।পু’লিশের কাছে ওই নারী জানায়, তার স্বামী স্নান তো করছেনই না। উপরন্তু প্রতিদিন তাকে

শারীরিক স’ম্পর্ক করার জন্য জো’র-জবরদস্তি করে যাচ্ছেন। তার কথায়, আমাদের ৯ বছরের মে’য়েটাও এখন ওর বাবার রুটিনই মেনে চলছে। ও স্নান করা বন্ধ করে দিয়েছে।

এদিকে বেঙ্গালুরু পু’লিশের কাছে জমা হয়েছে আর এক কেস। লকডাউনের সময়েই এক স্বামী আবার স্ত্রী’’র কাছে বায়না করেছিলেন চিকেন বিরিয়ানি বানিয়ে দিতে।

কিন্তু স্ত্রী’’ তাতে রাজি হননি। রেগে গিয়ে স্ত্রী’’কে বাড়ি থেকেই বের করে দেন ওই গুণধর। তারপরই পু’লিশের দ্বারস্থ হন ওই নারী।

প্রসঙ্গত,ইউরোপ আ’মেরিকার বিভিন্ন দেশে করো’না ভাই’রাসের মহামা’রী ছড়িয়ে পড়লেও প্রথম দিকে এশিয়াতে তেমন একটা প্রভাব দেখা যায়নি কিন্তু দেরিতে হলেও কোন ভাই’রাসের প্রাদুর্ভাব এখন এশিয়াতে বিরাজ করছে।

এশিয়ার বিভিন্ন দেশ নিয়ে আগে থেকেই সতর্ক করেছিল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা তবে তারই প্রতিফলন ঘটতে চলে

ছে। এশিয়ার মধ্যে অন্যতম জনসংখ্যাবহুল দেশ হল ভা’রত।

দেশটিতে ইতিমধ্যেই ছড়িয়েছে করো’নাভাই’রাস কিন্তু প্রথম থেকেই তারা বেশ সতর্ক অবস্থানে ছিল এই ভাই’রাসের সংক্রমণ

দেখা দিতেই তারা গোটা দেশ লকডাউন এর আওতায় নিয়ে আসে যার ফলে তুলনামূলক সংক্রমণ কম দেশটিতে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here